• প্রচ্ছদ » আলোচিত » বাসচাপায় দুই নিহত শিক্ষার্থীর পরিবারকে ১০ লাখ টাকা দেয়ার আদেশ বহাল


বাসচাপায় দুই নিহত শিক্ষার্থীর পরিবারকে ১০ লাখ টাকা দেয়ার আদেশ বহাল

জয়যাত্রা ডট কম : 09/08/2018

ফাইল ছবি

জয়যাত্রা ডেস্ক:
বেপরোয়া বাসের চাপায় দুই শিক্ষার্থীর মৃত্যুর ঘটনায় তাদের পরিবারকে এক সপ্তাহের মধ্যে ৫ লাখ টাকা করে দেয়ার আদেশের বিরুদ্ধে করা আবেদনটি পূর্ণাঙ্গ বেঞ্চে পাঠিয়েছেন চেম্বার আদালত।

আগামী ৪ অক্টোবর এ বিষয়ে পূর্ণাঙ্গ বেঞ্চে শুনানি হবে। এর ফলে হাইকোর্টর দেয়া আদেশ বহাল রয়েছে বলে জানিয়েছেন আইনজীবীরা।

বৃহস্পতিবার চেম্বার বিচারপতি হাসান ফয়েজ সিদ্দিকীর আদালত এ আদেশ দেন।

আদালতে জাবালে নূরের পক্ষে ছিলেন আইনজীবী পঙ্কজ কুমার কুণ্ডু। রিট আবেদনের পক্ষে ছিলেন আবেদনকারী আইনজীবী ব্যারিস্টার রুহুল কুদ্দুস কাজল।

তিনি জানান, হাইকোর্টের আদেশের বিরুদ্ধে জাবালে নূর আপিল বিভাগে আবেদন করেছিল। বৃহস্পতিবার আপিল বিভাগের চেম্বার আদালত আবেদনটি ৪ অক্টোবর শুনানির জন্য পূর্ণাঙ্গ বেঞ্চে পাঠিয়েছেন। এর ফলে ১০ লাখ টাকা দেয়ার আদেশ বহাল রইল। এর আগে ৩০ জুলাই এক রিট আবেদনের প্রেক্ষিতে হাইকোর্ট আদেশ দেন।

গত ৩০ জুলাই এক রিট আবেদনের প্রেক্ষিতে বেপরোয়া বাসের চাপায় নিহত দুই কলেজশিক্ষার্থীর পরিবারকে এক সপ্তাহের মধ্যে আপাতত ৫ লাখ টাকা করে দিতে জাবালে নূর পরিবহনকে নির্দেশ দেন হাইকোর্ট। একই সঙ্গে আদালত ওই ঘটনায় আহত ব্যক্তিদের চিকিৎসার ব্যয় মেটাতে জাবালে নূর পরিবহনকে নির্দেশ দেন।

ক্ষতিপূরণের অর্থ নিহতদের পরিবার পেল কিনা, তা নিশ্চিত করে বাংলাদেশ সড়ক পরিবহন কর্তৃপক্ষকে (বিআরটিএ) এ ব্যাপারে তদারকি করে আগামী ১২ আগস্ট আদালতে প্রতিবেদন দিতে বলা হয়।

বিচারপতি জে বি এম হাসান ও বিচারপতি মো. খায়রুল আলমের সমন্বয়ে গঠিত হাইকোর্ট বেঞ্চ রুলসহ এই আদেশ দেন। রুলে নিহত দুই শিক্ষার্থীর পরিবারকে দুই কোটি টাকা করে ক্ষতিপূরণ কেন দেয়া হবে না, তা জানতে চাওয়া হয়। একই সঙ্গে যাত্রীসাধারণের জানমালের নিরাপত্তা নিশ্চিত করতে কেন নির্দেশ দেয়া হবে, তা জানতে চেয়েছেন আদালত।

এছাড়া কোন যোগ্যতার ভিত্তিতে বিআরটিএ বাস-ট্রাক চালকদের লাইসেন্স প্রদান করে রুলে তা-ও জানতে চাওয়া হয়। স্বরাষ্ট্র সচিব, সড়ক পরিবহন সচিব, পুলিশ মহাপরিদর্শক, ঢাকা মহানগর পুলিশ কমিশনার, বিআরটিএর চেয়ারম্যানসহ সংশ্লিষ্টদের রুলের জবাব দিতে বলা হয়।

উল্লেখ্য, বিমানবন্দর সড়কে বাসচাপায় রমিজ উদ্দিন ক্যান্টনমেন্ট কলেজের দুই শিক্ষার্থী নিহত হন। বিমানবন্দর সড়কের বামপাশে বাসের জন্য অপেক্ষা করার সময় জাবালে নূর পরিবহনের একটি বাস তাদের চাপা দিলে এ দুর্ঘটনা ঘটে।

নিহতরা হলেন দিয়া আক্তার মিম ও আব্দুল করিম। নিহত ছাত্রী দিয়ার বাড়ি মহাখালী দক্ষিণপাড়ায়। সে একাদশ শ্রেণিতে পড়ত। তার বাবার নাম জাহাঙ্গীর আলম। অন্যদিকে, আব্দুল করিম কলেজের দ্বিতীয় বর্ষে পড়ত।

সূত্র: যুগান্তর




সর্বশেষ সংবাদ

ব্যবস্থাপনা সম্পাদক: মো. হাফিজউদ্দিন
সম্পাদক - তোফাজ্জল হোসেন
Mob : 01712 522087
ই- মেইল : [email protected]
Address : 125, New Kakrail Road, Shantinagar Plaza (5th Floor - B), Dhaka 1000
Tel : 88 02 8331019