রংপুরে দেশের ছোট পুরাতন মসজিদের সন্ধান

জয়যাত্রা ডট কম : 02/10/2018

রবিউল ইসলাম দুখু, রংপুর প্রতিনিধি: আকন্দপাড়ার পুরাতন মসজিদ। ছোট ছোট ইটের গাঁথুনিতে তৈরি মসজিদটির কারুকার্য চোখে ধরার মতো। সামান্য পরিমাণ জায়গায় দাঁড়িয়ে থাকা এই মসজিদের আয়তন নিয়ে রয়েছে বেশ কৌতুহল। এর উত্তর দক্ষিণে ৬ ফুট ৭ ইঞ্চি ও পূর্ব পশ্চিমে ১১ ফুট ৯ ইঞ্চি। দেয়াল ১ ফুট ১১ ইঞ্চি চওড়া। রংপুরের শ্যামপুরে ঐতিহাসিক এই নিদর্শনটির অবস্থান।

এই ইউনিয়নের আকন্দপাড়ার নান্দিনার দিঘীর পাড় থেকে মাত্র ৩শ গজের মধ্যেই পুরাতন এই মসজিদটি। গ্রামের মেঠোপথের পাশে ছোট একটি জায়গায় বাঁশের ঝাড়। মসজিদটি ওই বাঁশ ঝাড়ে বিরাট একটি বটবৃক্ষের লতাপাতা আর জঙ্গলের ভিতর। ভুতুরে পরিবেশে থাকা মসজিদটি এখন পরিত্যক্ত।কারুশিল্পে খচিত মসজিদের মিনারসহ ভেঙে পড়েছে এর অবকাঠামো। মসজিদ বেয়ে উঠেছে একটি বিরাট বটগাছ। এই বটবৃক্ষের ভরে খসে পড়েছে ইট। ভেঙে পড়েছে দক্ষিণের দেয়ালটি। বর্তমানে মসজিদের কোল ঘেঁষে দুটি কবর রয়েছে। ছোট ছোট ইটের গাঁথুনিতে তৈরি প্রাচীন স্থাপত্যের নিদর্শন এই মসজিদ। সময়ের পরিক্রমায় সংস্কারের ছোঁয়া লাগে নি। অযতœ-অবহেলা আর সংরক্ষণের উদ্যোগ না থাকায় বর্তমানে মসজিদটি ধ্বংসের দ্বারপ্রান্তে।

গবেষক জাহাঙ্গীর আলম জানান, এই মসজিদটি কারো মতে আড়াই শ বছর থেকে ৫০০ বছরের পুরাতন হবে। এখানকার পূর্বপুরুষদের মতে এই অঞ্চলে এতো ছোট মসজিদ আর নেই। এর জমির পরিমাণ ও আকার-আয়তন খুবই কম।

তিনি আরো জানান, একটি প্রবেশ পথ ও মেহরাব রয়েছে। মসজিদটি এতই ছোট যে এখানে ঈমামসহ ৩-৪জন নামাজ পড়তে পারতেন। মসজিদটি মিনার ভেঙে পড়েছে। বর্তমানে মসজিদটিকে ঘিরে একটি বিরাট বটগাছ বেয়ে উঠেছে।
কৃষক বাবর আলী বলেন, এত ছোট মসজিদও হয়, তাও মিনারসহ? তাদের বাপ-দাদার পূর্বপুরুষরা এই মসজিদের ইতিহাস ভালো জানতেন। আমরা শুনেছি এটি প্রায় ৩ থেকে ৪শ বছর আগের মসজিদ। এই মসজিদটি সংস্কার করে পর্যটন শিল্পের সঙে এই মসজিদটিকে যুক্ত করা হলে এখানে আরো মানুষ আসবে। ইতিহাসবিদ ও গবেষক খলিল বাবু মসজিদটি সংরক্ষণের উদ্যোগ নেয়ার দাবি জানিয়েছেন।
গোপালপুর ইউনিয়নের চেয়ারম্যান আজিজার রহমান দাবি করেছেন মসজিদটি সংরক্ষকরা গেলে প্রাচীন ঐতিহ্যে সংরক্ষণ হবে।

রংপুর বিভাগীয় প্রতœস¤পদ সংরক্ষণ কমিটির যুগ্ম আহবায়ক জাকির আহমেদ বলেন, আমরা দীর্ঘদিন ধরে এই অঞ্চলের প্রাচীন স্থাপত্য, নিদর্শন ও ঐতিহাসিক স¤পদ সংরক্ষণ এবং সংস্কারের জন্য দাবি জানিয়ে আসছি। এই মসজিদটি পরিদর্শন করে আমরা প্রতœতত্ত্ব বিভাগকে সংরক্ষণের জন্য উদ্যোগ নিতে আহ্বানও করেছিলাম। কিন্তু কোন কাজ হয়নি।

রংপুর জাদুঘরের কাস্টডিয়ান মো. আবু সাঈদ ইনাম তানভিরুল ইসলাম জানান, প্রাচীন ওই মসজিদটির সংরক্ষণ ও সংস্কারে সরকারের সংশ্লিষ্ট মন্ত্রণালয়কে অবগত করা হবে।




সর্বশেষ সংবাদ

ব্যবস্থাপনা সম্পাদক: মো. হাফিজউদ্দিন
সম্পাদক - তোফাজ্জল হোসেন
Mob : 01712 522087
ই- মেইল : [email protected]
Address : 125, New Kakrail Road, Shantinagar Plaza (5th Floor - B), Dhaka 1000
Tel : 88 02 8331019