মন্ত্রিসভায় ‘স্বর্ণ নীতিমালা-২০১৮’ এর অনুমোদন

জয়যাত্রা ডট কম : 03/10/2018

নিজস্ব প্রতিবেদক: চোরাচালান ও স্বর্ণ খাতে সুষ্ঠু পরিবেশ নিশ্চিত করতে ‘স্বর্ণ নীতিমালা-২০১৮’ এর খসড়ার অনুমোদন দিয়েছে মন্ত্রিসভা।

বুধবার সচিবালয়ে মন্ত্রিপরিষদ সচিব মোহাম্মদ শফিউল আলম সাংবাদিকদের এসব কথা বলেন। এর আগে প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনার সভাপতিত্বে প্রধানমন্ত্রীর কার্যালয়ে মন্ত্রিপরিষদ সভায় এ নীতির অনুমোদন দেওয়া হয়।

মন্ত্রিপরিষদ সচিব বলেন, দেশের চাহিদা মিটিয়ে ও বিদেশে স্বর্ণালঙ্কার রফতানি করার লক্ষ্যে স্বর্ণ আমদানির প্রক্রিয়া সহজীকরণ এবং স্বর্ণ আমাদানি ও পরবর্তী বাণিজ্যিক প্রক্রিয়ায় স্বচ্ছতা ও জবাবদিহিতা বিধানের লক্ষ্যে সুনির্দিষ্ট আমদারিকারক কতৃপক্ষ নির্ধারণ করা হবে এ নীতিমালায়।

এ ছাড়াও স্বর্ণালঙ্কার রফতানিতে উৎসাহ এবং নীতিগত সহযোগিতা প্রদানের মাধ্যমে রফতানি বৃদ্ধিকরণ করাও এ নীতিমালার লক্ষ্য। স্বর্ণালঙ্কার রফতানির ক্ষেত্রে বিদ্যমান শুল্ক ও ঋণ সুবিধা যৌক্তিকীকরণ ও সহজীকরণে এ নীতিমালা ব্যবহৃত হবে বলে উল্লেখ করেন শফিউল আলম।

তিনি জানান, স্বর্ণ খাতে ব্যবসাবান্ধব পরিবেশ বজায় রাখার লক্ষ্যে কার্যকর নিয়ন্ত্রণ সমন্বয় ও নিরীক্ষাগত যাবতীয় ব্যবস্থা প্রতিষ্ঠা করা হবে। ভোক্তা বা ক্রেতা স্বর্ণ ব্যবসায়ীসহ এ খাত সংশ্লিষ্ট অংশিজনের স্বার্থ সংরক্ষণ ও সকল অংশীজনের অংশিদারিত্ব ও কার্যকর সমন্বয় নিশ্চিতকরণের মাধ্যমে স্বর্ণখাতের সুষ্ঠু ও টেকসই বিকাশের জন্যে একটি সহায়ক পরিবেশ সৃষ্টি করাও হবে এ নীতিমালার কাজ।

এর আগে নীতিমালাটি একনেকে অনুমোদন দেওয়া হয়েছে উল্লেখ করে মন্ত্রিপরিষদ সচিব বলেন, সেখানে এ নীতিমালা পাশের বিষয়ে সুপারিশ করা হয়। সারাবিশ্বে শুধু ২০১৬ সালে অলঙ্কার রফতানি হয়েছে ৬৩৮ দশমিক ৩৭ মিলিয়ন মার্কিন ডলার। এই হস্ত নির্মিত অলঙ্কারের প্রায় ৮০ শতাংশই ভারত এবং বাংলাদেশে উৎপাদিত হয়। রফতানি ব্যুরো উন্নয়নের পরিসংখ্যান মতে বাংলাদেশ ৬৭২ মার্কিন ডলার এবং ভারত রফতানি করেছে ৪২ দশমিক ২৯ বিলিয়ন মার্কিন ডলার। সেই হিসেবে আমাদের অবস্থান অনেক নিচে। তবে আমাদের দেশের শ্রমিক ভারতে গিয়ে স্বর্ণ তৈরি করে বেশি।

স্বর্ণালঙ্কার আমাদানির ক্ষেত্রে অনুমোদিত ডিলারের মাধ্যমে স্বর্ণবার আমদানির নতুন পদ্ধতি প্রবর্তন করা হবে। অনুমোদিত ডিলার নির্বাচনের কার্যক্রম বাংলাদেশ ব্যাংক কর্তৃক সম্পন্ন করা হবে। বাংলাদেশ ব্যাংক এই উদ্দেশ্যে গাইডলাইন দিয়ে নির্ধারিত দাম নির্ধারণ করে দেবে, বলে জানান মন্ত্রিপরিষদ সচিব।

অনুমোদিত ডিলার সরাসরি স্বর্ণবার আমদানি করতে পারবে এবং এ স্বর্ণবার অলঙ্কার প্রস্তুতকারকদের কাছে বিক্রি করতে পারবে। তৈরি অলঙ্কার বিদেশে রফতানি করা হবে। স্বর্ণালঙ্কার বিক্রি করার ক্ষেত্রে হলমার্ক ব্যবহার বাধ্যতামূলক করতে হবে বলেও জানান মন্ত্রিপরিষদ সচিব।




সর্বশেষ সংবাদ

সম্পাদক - তোফাজ্জল হোসেন
Mob : 01712 522087
ই- মেইল : [email protected]
Address : 125, New Kakrail Road, Shantinagar Plaza (5th Floor - B), Dhaka 1000
Tel : 88 02 8331019