• প্রচ্ছদ » ফিচার » চিকিৎসক সংকটে রংপুরের হাসপাতালগুলো :১১৮ টি পদ শূণ্য


চিকিৎসক সংকটে রংপুরের হাসপাতালগুলো :১১৮ টি পদ শূণ্য

জয়যাত্রা ডট কম : 25/07/2019

রবিউল ইসলাম দুখু, রংপুর:

চিকিৎসক সংকটে রয়েছে রংপুরের স্বাস্থ্যসেবা। জেলার ৮ উপজেলায় ৭টি উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্্র বা উপজেলা হাসপাতাল থাকলেও প্রতিটি হাসপাতালে চিকিৎসক সংকট বিরাজ করছে। এমনকি কোন কোন হাসপাতালে ২৩ জন চিকিৎসকের পদ থাকলেও কাজ করছেন মাত্র ২ জন। এমতাবস্থায় রংপুরের লাখো মানুষ স্বাস্থ্য ঝুঁকিতে রয়েছেন।
হাসপাতাল গুলোতে ঠিকমত চিকিৎসা সেবা না পেয়ে তারা ফিরে যাচ্ছেন। আর কেউ কেউ রংপুর মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে যাচ্ছেন চিকিৎসা নিতে।

রংপুর সিভিল সার্জন অফিস সূত্রে প্রাপ্ত তথ্য অনুসারে, জেলার ৭ টি উপজেলা হাসপাতালে মোট ২১৫ জন চিকিৎসকের পদ থাকলেও কর্মরত আছেন মাত্র ৯৭ জন। আর শূণ্য রয়েছে ১১৮ টি চিকিৎসকের পদ। এমনকি মিঠাপুকুর উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্স উপজেলা স্বাস্থ্য ও পরিবার পরিকল্পনা অফিসারের পদটিও শূণ্য।
রংপুরের ৭ উপজেলায় মোট ২৭৪ টি শয্যা রয়েছে রোগীদের জন্য। এর মধ্যে মিঠাপুকুরে হাসপাতালে শয্যা সংখ্যা ৫০ টি, বদরগঞ্জে ৩১ টি, কাউনিয়ায় ৩১ টি, তারাগঞ্জে ৩১ টি, পীরগঞ্জে ৫০ টি, গংগাচড়ায় ৫০ টি এবং পীরগাছায় ৩১ টি।

সূত্রে আরো জানা গেছে, উপজেলা হাসপাতাল গুলোতে উপজেলা স্বাস্থ্য ও পরিবার পরিকল্পনা অফিসার (ইউএইচ এন্ড এফপিও) ছাড়াও, আবাসিক মেডিকেল অফিসার(আরএমও), মেডিকেল অফিসার অব ডিজিজ কন্টোল(এমওডিসি), মেডিকেল অফিসার, সাব এসিস্টেন্ট কমিউনিটি মেডিকেল অফিসার (এসএসিএমও), ডেন্টাল এসিসটেন্ট, ফার্মাসিস্ট, হারবাল এসিসটেন্ট থাকার কথা। ৫০ শয্যার একটি হাসপাতালে মোট ২৩ জন এবং ৩১ শয্যার একটি হাসপাতালে ১১ জন চিকিৎসক থাকার কথা থাকলেও হাসপাতালগুলোতে ৪/৫ জন করে চিকিৎসক রয়েছে।

রংপুরের পীরগঞ্জ উপজেলায় ৫০ শয্যার উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্্ের মোট চিকিৎসক থাকার কথা ২৩ জন। সেখানে ২ জন চিকিৎসক গোটা উপজেলার কয়েক লক্ষ মানুষের স্বাস্থ্য সেবা দিয়ে যাচ্ছেন। এখানে ১৮ টি চিকিৎসকের পদ শূণ্য। এ অবস্থায় এক দিকে রোগীরা যেমন সঠিক স্বাস্থ্য সেবা পাচ্ছেন না। তেমনি এই দুই জন চিকিৎসকও রয়েছেন বিড়ম্বনায়। পীরগঞ্জ হাসপাতালে মোট ২৩ টি চিকিৎসকের পদ। বর্তমানে কর্মরত রয়েছেন ৫ জন। আবার এই ৫ জনের মধ্যে ১ জন ডেন্টাল সার্জন, ১ জন মাতৃত্বকালীন ছুটিতে আর ১ জন ফাউন্ডেশন ট্রেনিং এ রয়েছেন।

রংপুরের সিভিল সার্জন ডা. হিরম্ব কুমার রায় বলেন, প্রায় প্রতিটি হাসপাতালেরই একই চিত্র। যারা কর্মরত রয়েছেন তারা বেশ আন্তরিকতার সাথে কাজ করছেন। আর এই সংকটের কথা আমরা স্বাস্থ্য অধিদপ্তরসহ উর্ধ্বতন কর্তৃপক্ষের কাছে অবগত করেছি।




সর্বশেষ সংবাদ

সম্পাদক - তোফাজ্জল হোসেন
Mob : 01712 522087
ই- মেইল : [email protected]
Address : 125, New Kakrail Road, Shantinagar Plaza (5th Floor - B), Dhaka 1000
Tel : 88 02 8331019