মশক নিধন কার্যক্রমের কেনাকাটায় স্বচ্ছতা চায় দুদক

জয়যাত্রা ডট কম : 29/08/2019


নিজস্ব প্রতিবেদক :
ঢাকা সিটি কর্পোরেশনের মশক নিধন কার্যক্রমের কেনাকাটা ও বাস্তবায়নে স্বচ্ছতা চাইলেন দুর্নীতি দমন কমিশনের ( দুদক ) কমিশনার ড. মোঃ মোজাম্মেল হক খান।

তিনি বলেন, দুদকের ২৫ টি সরকারি সেবামূলক প্রতিষ্ঠানের দুর্নীতি-অনিয়ম-হয়রানি প্রতিরোধে ২৫ টি প্রাতিষ্ঠানিক টিমের মাধ্যমে বিভিন্ন কার্যক্রম পরিচালনা করছে। প্রয়োজন হলে এ জাতীয় আরো প্রাতিষ্ঠানিক টিম আরো গঠন করা হবে।

বৃহস্পতিবার (২৯ আগস্ট ) রাজধানীর বেইলি রোডে অফিসার্স ক্লাবের উদ্যোগে শিক্ষা প্রতিষ্ঠান ও আবাসিক এলাকায় এডিস মশা নিধনে পরিচ্ছন্নতা অভিযানের উদ্বোধনী অনুষ্ঠানে প্রধান অতিথির বক্তব্যে দুদক কমিশনার এসব কথা বলেন।

এসময় তার সঙ্গে অন্যান্যের মধ্যে ছিলেন অফিসার্স ক্লাবের সাধারণ সম্পাদক এবং সাবেক সচিব মোঃ ইব্রাহিম হোসেন খান, ঢাকা সিটি কর্পোরেশনের সাবেক প্রধান নির্বাহী কর্মকর্তা মোঃ আনসার আলী খান, ঢাকা দক্ষিণ সিটি কর্পোরেশনর প্রধান নির্বাহী কর্মকর্তা মোঃ মোস্তাফিজুর রহমান প্রমুখ।

দুদক কমিশনার ড. মোঃ মোজাম্মেল হক খান বলেন, ব্যক্তি পর্যায়ে পরিস্কার-পরিচ্ছনতার মাধ্যমেই পরিবার, প্রাতিষ্ঠানিক তথা সার্বিকভাবে নগরের পরিচ্ছনতা বিকশিত হয়। সিটি কর্পোরেশনের পরিস্কার-পরিচ্ছনতা অভিযানকে সাধুবাদ জানিয়ে দুদক কমিশনার বলেন, এবার পরিস্কার-পরিচ্ছনতার জন্য এনফোর্সমেন্ট নতুন সংযোজন।

তিনি বলেন, এডিস মশা নিধনে সিটি কর্পোরেশনের সমন্বিত অভিযানে অফিসার্স ক্লাব, বাংলাদেশ স্কাউটস, সার্বিকভাবে পাশে থাকবে। তিনি বলেন এডিস মশার কারণে ডেঙ্গু আক্রান্ত হয়ে মৃত্যুবরণ চরম বেদনার। ব্যক্তি ও প্রাতিষ্ঠানিক পর্যায়ে সচেতন হলে হয়তো এভাবে মূল্যবান প্রাণহানি ঘটতো না।

তিনি সিটি কর্পোরেশনের উদ্দেশ্যে বলেন, মশা নিধনের ওষুধ ক্রয় কিংবা যন্ত্রপাতিক্রয় থেকে শুরু করে এসব কার্যক্রম বাস্তবায়নে ন্যূনতম দুর্নীতি হোক এটা কমিশন প্রত্যাশা করে না। আমরা আশা করি এসব কাজে কোনো দুর্নীতি সংঘটিত হবে না, কেউ অভিযোগও করবে না, এমনকি কমিশনের অভিযোগকেন্দ্রের হটলাইন-১০৬ এ কেউ জানাবে না-দুর্নীতি হয়েছে।

কারণ মহামূল্যবান প্রাণ রক্ষার এই মহৎ কাজ দুর্নীতির মতো জঘন্য অপরাধে কলঙ্কিত হোক দেশের কোনো বিবেকবান মানুষ তা প্রত্যাশা করে না। দুর্নীতি দমন কমিশনও তেমনটা আশঙ্কা করে না।

সাংবাদিকদের এক প্রশ্নের জবাবে দুদক কমিশনার বলেন, শুধু সিটি কর্পোরেশন নয়, দুদকের নজরদারি রয়েছে সর্বত্রই। দুদক এখন সর্বোচ্চ সক্রিয়। আগে যারা দুদককে দন্তহীন বাঘ বলতেন, তারা এখন আর এভাবে ভাবেন না।

কারণ কমিশনের বর্তমানে চলমান বহুমাত্রিক কার্যক্রমকে তারা অনুধাবন করছেন। দুদক দুর্নীতি দমন ও প্রতিরোধে নিরন্তর চেষ্টা করছে।

উদ্বোধনী অনুষ্ঠানের পর পরই সিটি কর্পোরেশনের মশক নিধন কর্মীদের সঙ্গে নিয়ে দুদক কমিশনার ভিকারুননেছা স্কুল এন্ড কলেজে মশক নিধন কার্যক্রম পর্যবেক্ষণ করেন।

বিদ্যালয়টির অভ্যন্তরীণ পরিস্কার-পরিচ্ছন্নতা দেখে দুদক কমিশনার বিদ্যালয়টির অধ্যক্ষসহ সংশ্লিষ্ট সকলকে ধন্যবাদ জানান। এরপর তিনি পর্যায়ক্রমে বিয়াম স্কুল ও ঢাকা কলেজে মশক নিধন কার্যক্রমে অংশগ্রহণ করেন। # একে




সর্বশেষ সংবাদ

সম্পাদক - তোফাজ্জল হোসেন
Mob : 01712 522087
ই- মেইল : [email protected]
Address : 125, New Kakrail Road, Shantinagar Plaza (5th Floor - B), Dhaka 1000
Tel : 88 02 8331019