ভবন ব্যবহারের সনদ না নিলে মিলবে না পানি-বিদ্যুৎ-গ্যাস

নিজস্ব প্রতিবেদক :
নির্মাণকাজ শেষ হলেও ভবনে বসবাস বা ব্যবহারের সনদপত্র গ্রহণ করেননি, এমন ভবনের মালিক বা সংশ্লিষ্টদের আগামী দুই মাসের মধ্যে সনদ গ্রহণের নির্দেশ দিয়েছে রাজধানী উন্নয়ন কর্তৃপক্ষ (রাজউক)।

রাউজক সূত্র জানিয়েছে, সনদ ছাড়া ভবনে নতুন করে পানি, বিদ্যুৎ ও গ্যাসের সংযোগ দেওয়া হবে না। যেসব ভবনে সংযোগ আছে, সেখানে ভ্রাম্যমাণ আদালত অভিযান চালিয়ে সংযোগ বিচ্ছিন্ন করবে এবং আইনি ব্যবস্থা নেবে।
বুধবার (১২ জানুয়ারি) রাজউকের পরিচালক (উন্নয়ন নিয়ন্ত্রণ-১) প্রকৌশলী মোবারক হোসেনের সই করা এক বিজ্ঞপ্তিতে এ তথ্য জানানো হয়েছে।

এতে বলা হয়, ঢাকা মহানগর ইমারত (নির্মাণ, সংরক্ষণ, উন্নয়ন ও অপসারণ) বিধিমালা, ২০০৮-এর বিধি ১৮ অনুসারে ইমারতের আংশিক-সম্পূর্ণ অংশ নির্মাণ শেষে ব্যবহারের আগে ভবন মালিক কর্তৃক রাজউক থেকে বসবাস বা ব্যবহার সনদপত্র গ্রহণ করা বাধ্যতামূলক। সেই সঙ্গে প্রতি পাঁচ বছর পরপর সেই বসবাস বা ব্যবহারের সনদপত্র নবায়ন করাও বাধ্যতামূলক। বসবাস বা ব্যবহার সনদপত্র না থাকলে রাজউক আওতাধীন এলাকায় ইমারতের মালিকানা হস্তান্তর ও নামজারির অনুমোদন পাওয়া যাবে না।
বিজ্ঞপ্তিতে আরও বলা হয়, রাজউক থেকে নকশা অনুমোদন নিয়ে যেসব ভবনের মালিক নির্মাণকাজ শেষের পর বসবাস বা ব্যবহার সনদপত্র বাদে গ্যাস, বিদ্যুৎ ও পানির সংযোগগ্রহণ করেছেন, সেসব ভবন মালিকের বিরুদ্ধে ভ্রাম্যমাণ আদালত পরিচালনা করে সংযোগ বিচ্ছিন্নকরণসহ আইনি ব্যবস্থা গ্রহণ করা হবে।